যুবর পিকনিকে হামলা মাদারের, উত্তেজনা দিনহাটায়




দিনহাটা, ৯জুলাই: যুবদের পিকনিক চলাকালীন আচমকা হামলা চালানোর অভিযোগ উঠল মাদার তৃণমুল কংগ্রেস কর্মীদের বিরুদ্ধে। ওই ঘটনায় আহত হয়েছেন একজন। তার নাম সত্যেন বর্মণ (৩০)। তার বাড়ি ঝাপুড়া আমতলা এলাকায়। ঘটনাটি ঘটেছে রবিবার রাত সাড়ে সাতটা নাগাদ দিনহাটা ২নং ব্লকের বড় শাকদল গ্রাম পঞ্চায়েতের ঝাপুড়া আমতলা এলাকায়। ওই ঘটনায় আক্রান্ত ওই যুবককে উদ্ধার করে দিনহাটা মহকুমা হাসপাতালে ভরটি করা হয়। ওই ঘটনাকে কেন্দ্র করে এলাকার মানুষ আতঙ্কিত হয়ে পড়েছে। ওই ঘটনার খবর পেয়ে সাহেবগঞ্জ থানার পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়েছে বলে জানা যায়।




যদিও তৃনমূল কংগ্রেসের দিনহাটার বিধায়ক উদয়ন গুহ বলেন, “যাদের সাথে গণ্ডগোলের খবর পাওয়া গেছে, তারা বিজেপির লোক। পঞ্চায়েত নির্বাচনে প্রার্থীও হয়েছিল বিজেপি থেকে। ঘটনার পর পুলিশ ওই বাড়ী থেকে অনেক তীর ধনুকও উদ্ধার করেছে বলে জানতে পেরেছি।”

আক্রান্ত তৃণমুল যুব কর্মী সত্যেন বর্মণের অভিযোগ, “এদিন আশপাশের এলাকার যুব কর্মীদের নিয়ে পিকনিক চলছিল। সেখানে আচমকা স্থানীয় মাদার তৃনমুলের তাপস দাসের নেতৃত্ব ১৫ ২০ জন এসে বন্দুক, পিস্তল, বাস, রামদা নিয়ে আমাদের উপর অতর্কিত ভাবে হামলা চালায়। তাতে আমাদের বেশ কয়েকজন যুব কর্মী আহত হয়েছেন। কোনও রকমে অন্য সকলে পালিয়ে গেলেও আমি আটকা পড়ে যাই। হামলাকারীরা আমার উপর ধারাল অস্ত্র দিয়ে আঘাত করে।”

দিনহাটা ২ নং ব্লকের তৃনমুল যুব কংগ্রেসের সভাপতি আরিফ হোসেন বলেন, “আমি ঘটনাটি শুনেছি। তবে দলটাকে নষ্ট করার চক্রান্ত করছে কিছু নেতৃত্ব। গোটা দিনহাটায় এই চক্রান্ত চলছে। কিছু নেতৃত্ব আছে তারা বিজেপির সাথে গোপনের যোগাযোগ করে তৃনমূল দলটার মধ্যে ভাঙ্গন সৃষ্টি করার চেষ্টা করছে। তারাই এধরনের ঘটনা ঘটাচ্ছে। তা নাহলে যুব তৃনমূলের কোন কর্মী কোথায় কার বাড়িতে পিকনিক খাচ্ছে, আর সেখানে গিয়ে হামলা করতে হবে। এটা দলটাকে নষ্ট করার চক্রান্ত ছাড়া আর কি হতে পারে।”




You May Also Like

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!