হেভিওয়েট বিজেপি প্রার্থীকে বদনাম করতে হাতিয়ার ১৫ বছরের নাবালিকা




শিলিগুড়ি, ১০ মে: বিজেপির জেলা পরিষদের হেভিওয়েট প্রার্থীকে বদনাম করতে নোংরা রাজনীতির রাস্তা অবলম্বন করার অভিযোগ উঠল তৃণমুল কংগ্রেসের বিরুদ্ধে। বৃহস্পতিবার এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে নিন্দার ঝড় উঠেছে রাজ্য রাজনীতিতে।




অভিযোগ, এক নাবালিকা শিশুকে নিজের মেয়ে বলে দীর্ঘদিন ধরে বাড়িতে আটকে রাখা হয়েছে। বুধবার রাতে নাবালিকা শিশুটির মা পুলিশে লিখিত অভিযোগ দায়ের করলে এদিন দুপুরে সেই প্রার্থীর বাড়িতে অভিযান চালায় পুলিশ। তারপর নাবালিকাকে উদ্ধার করে তুলে দেওয়া হয় জলপাইগুড়ি শিশু সুরক্ষা সমিতির কাছে। শুক্রবার নাবালিকাকে সিডাবলুসির জুভেনাইল জাস্টিস আদালতে পেস করা হবে।

পুলিশ ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা গিয়েছে, বাবুপাড়ার বাসিন্দা সুস্মিতা সিন্‌হা কৌশিক নামে এক মহিলা জলপাইগুড়ি জেলা পরিষদের বিজেপি মনোনীত প্রার্থী অলক সেনের বিরুদ্ধে এনজেপি থানায় অভিযোগ দায়ের করেন তার নাবালিকা মেয়েকে আটকে রাখার জন্য। সেই অভিযোগের ভিত্তিতে এদিন পুলিশ র‍্যাফ ও বিশাল পুলিশবাহিনী নিয়ে অভিযান চালানো হয় অলক সেনের বাড়িতে।

সুস্মিতা সিন্‌হা কৌশিক অভিযোগ করে বলেন, “আমার আর্থিক অবস্থা ভালো নয়। আমার আরও তিন মেয়ে রয়েছে। সে কারণে সবার সহমতে আমার মেয়েকে তিন বছর বয়সে অলোক সেন ও পম্পি সেনের কাছে তুলে দিই। মাঝেমধ্যে দেখা করতে দিত। কিন্তু ইদানিং একদমই দেখা করতে দিত না। এই বাড়ির পরিবেশও তেমন ভালো নয়। সেকারণেই মেয়েকে ফেরত চাইছি।”

অন্যদিকে, অলোক সেনের স্ত্রী পম্পি সেন বলেন, পনেরো দিন বয়স থাকাকালীন আমাদের কাছে মেয়েকে জোর করে দিয়ে যায়। আমরা তাকে নিজের মেয়ের মতো করে লালন পালন করি। তেরো বছর পর হঠাৎ ওর মেয়ের প্রতি আবার মমতা জেগে উঠল! এতদিন প্রত্যেক মাসে আমাদের থেকে টাকা নিয়েছে। শেষবারও টাকা চেয়েছিল। একমাত্র নির্বাচন সামনে দেখে এসব করা হচ্ছে।”

এলাকাবাসী কৃষ্ণা সরকার বলেন, আমরা ছোট থেকে এই মেয়েটাকে দেখছি। কোনও কিছুর অভাব হতে দেয়নি এই পরিবার। এখন কেন ওই মহিলা নিজের মেয়েকে ফেরত চাইছে? এতোদিন কোথায় ছিলেন? এসব কিছুই নোংরা রাজনীতি। এসব মানা যায় না।”

অন্যদিকে ওই নাবালিকা জানান, “আমার মা পম্পি সেন, বাবা অলোক সেন। এছাড়া আর কিছু জানিনা।” অলোক সেন বলেন, “একমাত্র বিজেপির প্রার্থী বলে আমাকে ও আমার পরিবারকে হেনস্থা করা হচ্ছে। আমার মেয়ের জীবন নষ্ট করা হচ্ছে। এর শেষ দেখে ছাড়বো। তৃণমুল কংগ্রেস নোংরা রাজনীতির খেলায় মেতে উঠেছে।”





You May Also Like

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!