২ বৌদির সঙ্গে স্বামীর অবৈধ সম্পর্ক, প্রতিবাদ করায় মুর্শিদাবাদে খুন গৃহবধূ







মুর্শিদাবাদ, ১২ মার্চ: দুই বৌদির সঙ্গে স্বামীর অবৈধ সম্পর্কের প্রতিবাদ করায় বিয়ের ছয় মাসের মধ্যেই খুন হতে হল এক গৃহবধূকে। মৃত গৃহবধূর নাম তাজকুরা বিবি(২৫)। খুনের অভিযোগ উঠেছে স্বামী মোজাম্মেল শেখ ও তার দুই বৌদির বিরুদ্ধে। ঘটনার পর থেকেই তিন অভিযুক্ত পলাতক। ঘটনাটি ঘটেছে মুর্শিদাবাদের সাগরদিঘি থানার গয়সাবাদ গ্রামে। ঘটনায় চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে এলাকায়। পুলিশ ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে।





 

জানা গিয়েছে, মাস ছয়েক আগে গয়সাবাদ গ্রামের মোজাম্মেল শেখের সঙ্গে ওই গ্রামের তাজকুরা বিবিব বিয়ে হয়। বিয়ের পরে তাজকুরা বিবি স্বামীর সঙ্গে দুই বৌদির অবৈধ সম্পর্কের বিষয়ে জানতে পারে। প্রতিবাদ করলে স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে অশান্তি শুরু হয়।




সবকিছু জেনে ফেলার পর থেকেই নানা অজুহাতে মোজম্মেল শেখ ও তার দুই বৌদি মিলে স্ত্রী তাজকুরা বিবির উপর মানসিক ও শারীরিক অত্যাচার শুরু করে। সোমবার রাতে স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে অশান্তি চরমে উঠলে মোজাম্মেল শেখ ও তার দুই বৌদি বালিশ চাপা দিয়ে শ্বাসরোধ করে ওই গৃহবধূকে খুন করে বলে অভিযোগ।




মৃত গৃহবধূর মা জানিয়েছেন, বিয়ের এক সপ্তাহ পরে মেয়ে, “জামাইয়ের অবৈধ সম্পর্কের বিষয়ে আমাকে জানায়। প্রতিবাদ করতে গেলে আমার মেয়েকে জামাই আর তার দুই বৌদি মিলে মারধর করত। সময়ের সঙ্গে সব ঠিকঠাক হয়ে যাবে ভেবে আমি চুপ করে ছিলাম। কিন্তু ওরা আমার মেয়েকে শেষ পর্যন্ত মেরেই ফেলল।”




মোজাম্মেল শেখের মা অবৈধ সম্পর্কের অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, “সংসারের অশান্তির কারণেই বউমা আত্মহত্যা করেছে। ”




সাগরদিঘি থানার এক পুলিশ আধিকারিক জানিয়েছেন, মৃত গৃহবধূর পরিবারের পক্ষ থেকে থানায় খুনের অভিযোগ দায়ের করেছে। পুলিশ ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে। অভিযুক্তরা এখনও পলাতক।








error: Content is protected !!