ফের ভারতীয় ২টি ট্রাকে আগুন, পুড়ল বেনাপোল কার্গোর ৭ নম্বর শেড




বনগাঁ, ২৬ জুন: সোমবার রাত ১০টা নাগাদ ফের ভারতীয় দুটি ট্রাকে আগুন লেগে পুড়ে গেল বেনাপোল কার্গোর ৭ নম্বর শেড। একটি ট্রাকে ছিল ব্লিচিং ও আরেকটিতে টায়ার। প্রসঙ্গত, গত ৩রা জুন, ভোর 8টে নাগাদ আগুন লাগে বাংলাদেশের বেনাপোলে। ৭টা ভারতীয় তুলাসহ ট্রাক ও একাধিক মাল বোঝাই ট্রাক পুড়ে ছাই হয়ে যায়। সকাল ৮টা নাগাদ আগুন নিয়ন্ত্রণে আসে।




ভারতীয় ট্রাক চালকরা ক্ষোভে ফেটে পড়ে এবং তারা বলে, “বাংলাদেশে মাল চুরি করে পরে হিসাব মেলাতে না পেরে আগুন লাগিয়ে দেয় ওরা। এর আগেও আগুন লাগিয়েছে বেনাপোল কার্গোতে”৷ নিরাপত্তা নিয়ে প্রশ্ন তুলছে চালক থেকে মালিক সমিতি সহ পেট্রাপোলের মোট ৯টি সংগঠন। আজ সকাল ৬টা থেকে এক্সপোর্ট ইমপোর্ট বন্ধ করেছে পেট্রাপোলে৷ তাদের বক্তব্য নিরাপত্তা ব্যবস্থা নিয়ে, তারা বলেন, “পুড়ে যাওয়া গাড়িগুলি ফেরত না আসা পর্যন্ত আমরা নো-ম্যানস্‌ ল্যাণ্ডে থাকব, বাংলা দেশে ঢুকব না”। কার্যত অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ রয়েছে আমদানি রপ্তানি।

পেট্রাপোল ফরোয়াডিং ষ্টাফ ওয়েল-ফেয়ার অ্যাসোসিয়েশানের সভাপতি খোকন পাল বলেন, “১৯৯৬ সালে ১৩টি, ২০১৭ সালে ২ টি, ২০১৮ সালের ৩রা জুন ৭ টি ও ২৫ তারিখ আবার ২ টি ট্রাক পুড়েছে বাংলাদেশে, কিন্তু আজ পর্যন্ত একটি পোড়া গাড়িও ভারতে ফেরত আসেনি। গাড়িগুলি ফেরত ও নিরাপত্তা সুনিশ্চিত না হলে আমরা বাংলাদেশে ঢুকব না”৷





error: Content is protected !!