বালুরঘাটে তৃণমূলের অস্থায়ী কার্যালয় পোড়ানোর অভিযোগ




বালুরঘাট, ২১ এপ্রিল: রাতের অন্ধকারে তৃণমূলের বেশকিছু অস্থায়ী নির্বাচনী কার্যালয় পুড়িয়ে দিল দুষ্কৃতীরা। ঘটনাটি ঘটেছে বালুরঘাট থানার মালঞ্চা, কামারপাড়া ও মাহিনগর স্কুলপাড়া এলাকায়।




খবর পেয়ে তিনটি স্থানেই পৌঁছায় বালুরঘাট থানার পুলিশ। এই ঘটনায় থানায় অভিযোগ দায়ের করেছেন স্থানীয় তৃণমূল নেত্রী তথা অমৃতখণ্ড গ্রাম পঞ্চায়েতের প্রধান জয়ন্তী সরকার। গোটা ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে বালুরঘাট থানার পুলিশ। সরাসরি নাম না করলেও অভিযোগের তীর বিরোধীদের দিকেই।

আসন্ন পঞ্চায়েত নির্বাচনে দলীয় প্রচার ও সাংগঠনিক আলোচনার জন্য বালুরঘাট থানার অমৃতখণ্ড গ্রাম পঞ্চায়েতের মালঞ্চা বাজার, কামারপাড়া ও মাহিনগর স্কুলপাড়া এলাকায় তৃণমূলের পক্ষ থেকে তৈরি করা হয়েছে অস্থায়ী নির্বাচনী কার্যালয়। শুক্রবার রাতে তৃণমূলের ওই তিনটি অস্থায়ী নির্বাচনী কার্যালয়গুলিতে আগুন লাগিয়ে দেয় দুষ্কৃতীরা। শুধু তাই নয়, ফ্ল্যাগ, ফেস্টুন ছিঁড়ে তাতেও আগুন লাগিয়ে দেওয়া হয়।

শনিবার সকালে বিষয়টি নজরে আসে স্থানীয়দের। খবর দেওয়া হয় পুলিশে। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছায় স্থানীয় তৃণমূল নেতৃত্ব। এদিকে আগুন লাগার বিষয়টি জানাজানি হতেই চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পড়ে এলাকায়। স্থানীয় তৃণমূল নেতৃত্বের পক্ষ থেকে লিখিত অভিযোগ দায়ের করা হয়। সরাসরি নাম না করলেও অভিযোগের তীর আরএসপি ও বিজেপির বিরুদ্ধে। চক্রান্ত করেই এমনটা ঘটানো হয়েছে বলে অভিযোগ তুলেছেন তৃণমূল নেতৃত্ব।

এবিষয়ে স্থানীয় তৃণমূল নেত্রী তথা অমৃতখণ্ড গ্রাম পঞ্চায়েতের প্রধান জয়ন্তী সরকার জানান, এদিন সকালে বিষয়টি নজরে আসে তাদের। পঞ্চায়েত নির্বাচনকে সামনে রেখে মালঞ্চা বাজারে তৈরি করা অস্থায়ী কার্যালয়ে আগুন লাগিয়ে দেয় দুষ্কৃতীরা। এর পেছনে বিরোধীদের-ই হাত রয়েছে বলে জানিয়েছেন তিনি।

অন্যদিকে বালুরঘাট থানার পুলিশের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, খবর পেয়ে তিনটি স্থানেই টহল দেন তারা। অভিযোগের ভিত্তিতে ইতিমধ্যেই গোটা ঘটনার তদন্ত শুরু করা হয়েছে।





You May Also Like

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!