কাউন্সিলরকে দিতে হয় টাকা, ভিডিয়ো প্রকাশ




হুগলি, ৮জুলাই: বৈদ্যবাটী ৪নং ওয়ার্ডে কাজ করতে গেলে দিতে হয় টাকা, না দিলে ঠিকাদারের বিল আটকে দেওয়া হয়। এমনই অভিযোগ তৃণমূল কাউন্সিলর গোরাচাঁদ শেঠের বিরুদ্ধে। কাউন্সিলরের টাকার বান্ডিল নেওয়ার ভিডিয়ো প্রকাশে শোরগোল এলাকায়।




সম্প্রতি ৪নং ওয়ার্ডেই রাস্তা ও ড্রেন তৈরীর সময় ঠিকাদারকে কাজ বন্ধ করতে বলেন কাউন্সিলর। কাজ করলে টাকা দিতে হবে বলে চাপ দেওয়া হয় ঠিকাদারকে। এরপর ওই ঠিকাদার পুরসভায় অভিযোগ জানান কাউন্সিলরের বিরুদ্ধে। যদিও সব অভিযোগ অস্বীকার করেছেন ওই কাউন্সিলর। তবে একটি ভিডিয়ো সামনে এসেছে যাতে দেখা যাচ্ছে অভিযুক্ত কাউন্সিলর টাকার বান্ডিল নিচ্ছেন। কি কারণে ওই টাকা নেওয়া হয়েছে সেটা স্পস্ট নয়। তবে টাকা নেওয়ার ভিডিও সামনে আসতেই শোরগোল পরেছে বৈদ্যবাটী পুর এলাকায়।

 

নামে প্রকাশে অনিচ্ছুক ওই ঠিকাদার বলছেন, ৪নং ওয়ার্ডে কাজ করতে গেলেই কাউন্সিলরকে টাকা দিতে হয়। আর টাকা দিলে কাজের গুনগত মানের সঙ্গে আপোষ করতে হয়।

 

অভিযোগ শুনে হুগলী জেলা তৃণমূল কার্যকরী সভাপতি বিধায়ক প্রবীর ঘোষাল বলেন, অভিযোগ গুরুত্বর। তদন্ত করে দেখতে হবে, অভিযোগের সত্যতা থাকলে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

 




Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!