মাধ্যমিকের ফল প্রকাশ, প্রথম কোচবিহারের সঞ্জীবনী দেবনাথ




কোচবিহার, ৬জুনঃ প্রকাশিত হল এবছরের মাধ্যমিক পরীক্ষার ফল। রাজ্যে প্রথম হয়েছেন কোচবিহার সুনীতি অ্যাকাডেমির সঞ্জীবনী দেবনাথ। তাঁর প্রাপ্ত নম্বর ৬৮৯। দ্বিতীয় হয়েছেন বর্ধমানের সাতগেছিয়ার শীর্ষেন্দু সাহা। তিনি পেয়েছেন ৬৮৮। ৬৮৭ নম্বর পেয়ে তৃতীয় হয়েছেন তিন জন। এরা হলেন কোচবিহার সুনীতি অ্যাকাডেমির ময়ূরাক্ষী সাহা, জলপাইগুড়ি জেলা স্কুলের নীলাজ্জ দাস ও জলপাইগুড়ি জেলা স্কুলেরই মৃণ্ময় মণ্ডল। এবছর মাধ্যমিকে পাসের হার ৮৫.৪৯ শতাংশ। গত বছর এই হার ছিল ৮৫.৬৫ শতাংশ। জেলাভিত্তিক পাসের হারে এগিয়ে পূর্ব মেদিনীপুর(৯৬.১৩ শতাংশ)।





দেখুন আরও ফলাফল। প্রথম দশে আছে ৫৬ জন-

দশম বৈদূর্য বিশ্বাস, ভীমরোষ সরকার, সুমন কুমার সাহা, মীর মহম্মদ ওয়াসিম, অরিত্র সরকার, তমান্না ফিরদৌস, অন্বেশা দে ঘুরিয়া, গৌরব মণ্ডল, মোনালিসা সামন্ত, সুমন রায়, ইন্দ্রজিৎ মিশ্র, অগ্নিজিৎ সিনহা, দেবাহ্ন প্রধান, পবিত্র সেনাপতি। প্রাপ্ত নম্বর ৬৮০।


নবম ঐতিহ্য সাহা, সায়ন্তিকা রায়, অম্লান ভট্টাচার্য, সায়ন্তন চৌধুরি, মহম্মদ রফিকুল হাসান, সায়ন নন্দী, সৌত্রিক সুর, তন্ময় চক্রবর্তী, সোহাম আহমেদ, সৈকত সিংহ রায় (প্রাপ্ত নম্বর ৬৮১)।অষ্টম অরিন্দম সাহা, অনামিত্র মুখার্জি, দেবারতী পাঁজা, দিশা মণ্ডল, প্রেরণা মণ্ডল (চন্দননগর), রূপসিংহ বাবু। সপ্তম মহাশ্বেতা হোমরা, অরিন্দম ঘোষ, পারমিতা মণ্ডল আর সার্থক। নিধি চৌধুরি, সুমিত বাগচি, অরিত্রিকা পাল, প্রতিমান দেব, শ্রুতি সিংহ মহাপাত্র, রৌনক সাহা ষষ্ঠ। প্রাপ্ত নম্বর ৬৮৪।


পশ্চিম মেদিনীপুরের অঙ্কিতা জানা পঞ্চম, চতুর্থ উত্তর ২৪ পরগনার প্রফুল্লনগর বিদ্যামন্দিরের ছাত্র দ্বীপ গায়েন। তৃতীয় তিনজন। ময়ূরাক্ষী সরকার (জলপাইগুড়ি স্কুল), মৃন্ময় মণ্ডল (জলপাইগুড়ি স্কুল), নীলব্জা দাস। প্রাপ্ত নম্বর ৬৮৭। দ্বিতীয় বর্ধমানের সাতগাছিয়া হাইস্কুলের শীর্ষেন্দু সাহা, প্রাপ্ত নম্বর ৬৮৮।


৭৬টি ডিসিপ্লিনারি সমস্যা ছিল। সেগুলি মিটিয়ে দেওয়া হয়েছে কোনও রেজ়াল্ট আটকানো হয়নি।সাফল্যের হারে পূর্ব মেদিনীপুর সাফল্যের হারে ১ নম্বরে, দ্বিতীয় পশ্চিম মেদিনীপুর, তৃতীয় কলকাতা, চতুর্থ দক্ষিণ ২৪ পরগনা ও পঞ্চম উত্তর ২৪ পরগনা।সাফল্যের হারে পিছিয়ে মেয়েরা। গতবারের তুলনায় ১ লাখ ২৯ হাজার ৮৮ জন মহিলা পরীক্ষার্থী বেশি





You May Also Like

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!