রেঁস্তোরায় নয় অনাথ শিশুদের সঙ্গে জন্মদিন পালন করল বৈশাখী-শুভদীপ




হিলি, ১৮ ফেব্রুয়ারিঃ পরিবার বা বন্ধুদের সঙ্গে রেঁস্তোরায় নয়। বালুরঘাটের এক যুবক ও এক যুবতী নিজেদের ৩০ তম জন্ম দিন পালন করল হিলির তিওড় হলদিয়া বিবেকানন্দ শিশু নিকেতনের অনাথ শিশুদের সঙ্গে। নিজেদেরর জন্ম দিনে অনাথ শিশুদের কেক, বিস্কুট, চকলেট কিনে খাওয়ায় বৈশাখী দত্ত ও শুভদীপ আইচ। আর এই কাজে বৈশাখী ও শুভদীপের পাশে ছিল তাদের পরিচিতরারা। সবাই মিলে অনাথ শিশুদের সঙ্গে নাচ, গান, আবৃতি, আড্ডা ও জমিয়ে গল্প করে তারা।
আর পাঁচজনের মত তাদের যে সখ আল্লাদ নেই। ২৪ ঘণ্টায় কাটে সরকারি আবাসনের বদ্ধ চার দেওয়ালের ভেতরে।


তবে রবিবার একটু অন্য রকম ভাবে কাটালো হিলি থানার তিওড় হলদিয়া বিবেকানন্দ শিশু নিকেতনের আবাসিক শিশুদের। অনেকটাই দেবদূতের মত সকাল সকাল হোমে এসে হাজির হন বালুরঘাট শহরের খাদিমপুর এলাকার বৈশাখী দত্ত ও শুভদীপ আইচ। সেও আবার খালি হাতে আসে নি। সঙ্গে ছিল চকোলেট, বিস্কুট, কেক থেকে আরও কত কি। এই সব খাওয়ার পরে আবার নাচ, গান, আবৃত্তি। ভাবতে অবাক লাগলেও সবই সত্যি হচ্ছিল এক এক করে তাদের কাছে।

বালুরঘাট শহরের খাদিমপুর এলাকার বৈশাখী দত্ত ও শুভদীপ আইচ এর বাড়ি। শুভদীপ পেশায় সরকারি চাকুরিজীবী। আর বৈশাখী দত্ত খুব ভাল কেক তৈরি করেন এবং লোকের অর্ডারও নেন। আজকের কেকও সে নিজে হাতে বানিয়ে এনেছিল। দু’জনেই এবার ৩০ তম জন্মদিন। নিজেদের জন্ম দিন একটু অন্য ভাবে পালন করার ইচ্ছে ছিল এবার। বাড়িতে ধুমধাম করে পরিবারের সঙ্গে নয়, কোন এক আবাসিক অনাথ শিশুদের সঙ্গে নিজের জন্মদিন পালন করবে তারা। নিজেদের ভাবনার কথা বাড়িতে জানিয়েছিল তারা। ছেলে মেয়ের ইচ্ছেকে প্রাধান্য দিয়েছিল পরিবারও।




সেই মত রবিবার হিলির হলদিয়া সমাজ কল্যাণ সমিতিতে দুপুরে হাজির হয় বৈশাখী দত্ত ও শুভদীপ আইচ। সঙ্গে ছিল বিদিশা চক্রবর্তী,  সূরজ দাশ, দেবাশীষ সরকার, পার্থ বিশ্বাসরাও। এছাড়াও সঙ্গে ছিলেন হোমের সুপার দেবব্রত দাস ও অন্যান্য কর্মীরা। হোমের প্রায় ৬০ জন অনাথ আবাসিকদের সঙ্গে নাচ, গান, খেলায় মেতে ওঠেন তারা। সবার সঙ্গে কেক কাটে শুভদীপ ও বৈশাখী। এর দুপুরে খাওয়ার ব্যবস্থাও করে তারা। মেনুতে ছিল ভাত, ডাল, ঘন্ট, মাংস, চাটনি।  অনাথ শিশুদের সঙ্গে একটা দিন কাটাতে পেরে ওদের কিছুটা হলেও আনন্দ দিতে পেরে খুশি শুভদীপ ও বৈশাখী।




এমন চিন্তাধারাকে সাধু বাদ জানিয়েছেন শিশুদের নিয়ে কাজ করা স্বেচ্ছাসেবী সংস্থা চাইল্ড লাইনের জেলা কো অর্ডিনেটর সূরজ দাশ। এখানকার মানুষ অভিনব কিছু ভাবতে পারে। এমন অভিনব ভাবনায় নিজের জন্মদিন পালনে এগিয়ে আশার জন্য শুভদীপ আইচ ও বৈশাখী দত্তকে সাধুবাদ জানান তিনি। আগামী দিনে এমন উদ্যোগে তিনি ও চাইল্ড ও তাদের পাশে থাকতে চান বলে জানিয়েছেন সূরজবাবু।





Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *