গাজলে আক্রান্ত ৫ বিজেপি কর্মী— রাজনৈতিক নয় জমি বিবাদ, দাবি তৃণমূলের




মালদা, ১১ জুন : নির্বাচনী পর্ব মিটলেও রাজনৈতিক হিংসা অব্যাহত মালদায়। রাতে বিজেপি কর্মীদের ওপর হামলার অভিযোগ। অভিযুক্তের কাঠগড়ায় শাসকদল তৃণমূল কংগ্রেস। ঘটনায় বিজেপির পাঁচ কর্মী গুরুতর জখম। ঘটনাটি ঘটেছে মালদার গাজোল থানার আলালের কদমতলী গ্রামে। ঘটনায় আক্রান্তদের পক্ষ থেকে গাজোল থানায় অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে।




জানা গিয়েছে, আক্রান্তরা হলেন মুহিবুর রহমান(৪৬) এনামুল হক(৪৮) মুজিবর রহমান(৫৫)। গুরুতর জখম এই তিন জন মালদা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। ঘটনায় আহত আরো দুই আফসার আলী ও মহঃ আরিফের চিকিৎসা চলছে গাজোল গ্রামীণ হাসপাতালে। আক্রান্তরা সকলে বিজেপি দলের কর্মী বলে দাবি।

আক্রান্ত ব্যক্তি মুহিবুর রহমান জানান,”পঞ্চায়েত নির্বাচনের সময় থেকে তৃণমূলের গুন্ডাবাহিনীর গন্ডগোল চালাচ্ছিল এলাকায়। বিজেপি আমাদের মারধর করেছে তৃণমূলের গুন্ডা বাহিনী। রবিবার রাতে আমরা পাঁচজন বাড়ি ফেরার পথে ফাঁকা রাস্তায় বেশ কয়েকজন ঘিরে ধরে। পাঁচজনের উপর লাঠি ও ধারালো অস্ত্র নিয়ে চড়াও হয়। যারা মারধর করেছে তারা সকলেই তৃণমূল কর্মী। ওই গ্রাম পঞ্চায়েত আসনে তৃণমূলের প্রার্থী জয়ী হয়েছে। অভিযুক্তরা হলেন ফারুক শেখ,নজরুল ইসলাম,কাবিরুল হক সহ ৬ জনের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে গাজোল থানায়”।

তবে তৃণমূলের পক্ষ থেকে এই অভিযোগ অস্বীকার করা হয়েছে। তৃণমূলের তরফ থেকে জমি সংক্রান্ত বিষয়ের বিবাদের জেরে ঘটনা ঘটেছে। এই ঘটনায় তৃণমূল কোনও ভাবেই জড়িত নয় বলে দাবি গাজোল ব্লক তৃণমূল নেতৃত্বের। অভিযোগের ভিত্তিতে ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে গাজোল থানার পুলিশ।




You May Also Like

error: Content is protected !!