কন্যাশ্রী বিশ্ববিদ্যালয়ের শিলান্যাস করলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়




নদিয়া,১০ জানুয়ারি:আজ নদিয়ার কৃষ্ণনগরে কন্যাশ্রী বিশ্ববিদ্যালয়ের শিলান্যাস সহ বিভিন্ন প্রকল্পের উদ্বোধন করলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। কৃষ্ণনগরে সভা থেকে কন্যাশ্রী বিশ্ববিদ্যালয়ে বিনামূল্যে পড়ানোর কথা ঘোষণা করেন তিনি। এছাড়াও মুখ্যমন্ত্রী জানিয়েছেন বিশ্ববিদ্যালয়ের কলা বিভাগের ছাত্রছাত্রীদের জন্য ২০০০ টাকা স্কলারশিপ এবং বিজ্ঞান বিভাগের জন্য ২৫০০ টাকা স্কলারশিপ দেবে রাজ্য সরকার। তিনি ঘোষণা করলেন আগামীকাল থেকে শুরু হতে চলেছে উত্তর চব্বিশ পরগনার হরিচাঁদ গুরুচাঁদ বিশ্ববিদ্যালয়।




এছাড়াও ২০১৮-এ হওয়া জলতরঙ্গ স্পোর্টস ফেস্টিভ্যালের নদিয়া জেলার পুরস্কার বিতরণ করা হয় আজকে। একইসঙ্গে নদিয়ার মানুষের সুবিধার্থে কালনা থেকে শান্তিপুর পর্যন্ত ব্রিজ তৈরি হচ্ছে বলে জানান তিনি। এছাড়াও একাধিক সরকারি পরিষেবা প্রদান অনুষ্ঠিত হয় এই সভায়। কৃষ্ণনগরের এই সভা থেকেই মোদি সরকারকে তোপ দাগলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। রাজ্য সরকারের প্রকল্পে এবং আইনশৃঙ্খলাতেও কেন্দ্রের হস্তক্ষেপের তীব্র নিন্দা করলেন মুখ্যমন্ত্রী। এর আগেও নামখানার প্রশাসনিক বৈঠকে ওঠে এসেছিল ফসল বীমা যোজনার কথা, রাজ্যের টাকা নিয়ে কেন্দ্রের নামে বীমার টাকা দেওয়া হচ্ছে বলে জানিয়েছিলেন তিনি।

বেশিরভাগ টাকাই রাজ্য সরকার দেয় বলে দাবি করেছিলেন মুখ্যমন্ত্রী। আজকেও তিনি বললেন একাধিক সরকারি প্রকল্পে টাকা দিচ্ছে রাজ্য সরকার, অথচ প্রচার করা হচ্ছে কেন্দ্র সরকার টাকা দিচ্ছে। মুখ্যমন্ত্রী ঘোষণা করেছেন এর প্রতিবাদে আয়ুষ্মান ভারত প্রকল্পে রাজ্য সরকার কোনো টাকা দেবে না। মুখ্যমন্ত্রী অভিযোগ করেছেন সংরক্ষণ নিয়েও মোদি সরকার রাজনীতি করছে।

মুখ্যমন্ত্রী অভিযোগ করেছেন সংরক্ষণ নিয়েও মোদি সরকার রাজনীতি করছে,পঞ্চাশ শতাংশ সংরক্ষণকে ষাট শতাংশে অবধি বাড়িয়ে দেওয়া হয়েছে। যার ফলে ক্ষতি হয়েছে উচ্চবর্ণের মানুষের এবং এর ফলে আগের তুলনায় অনেক বেশি চাকরির সংকট তৈরি হবে বলে মনে করছেন তিনি।




Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!