ইস্টবেঙ্গল-মিনারভা ম্যাচ ঘিরে রণক্ষেত্র







সৌরভ দাস, ৩০ জানুয়ারিঃ কলকাতা ফুটবলে ইস্টবেঙ্গল এক আবেগের নাম। সেই খেলাকেই কেন্দ্র করে রণক্ষেত্র হয়ে উঠল বারাসতের বিদ্যাসাগর ক্রীড়াঙ্গন। আজ ছিল ইস্টবেঙ্গল বনাম মিনারভা এফ সি ফুটবল ম্যাচ। লীগের ম্যাচ হলেও ইস্টবেঙ্গল এর কাছে ছিল ডু অর ডাই ম্যাচ। প্রথমার্ধে ২-০ গোল এ পিছিয়ে পরে ইস্টবেঙ্গল। এরপর দ্বিতীয়ার্ধের শুরুতে পেনাল্টির সুযোগ মিস করে কাৎসুমি। এরপর জবি ও ব্রান্ডনের গোলে সমতা ফেরায় ইস্টবেঙ্গল। এরপরই শুরু হয়ে ঝামেলা। সমর্থকরা বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করে কর্মকর্তাদের বিরুদ্ধে। কর্মপ্রধান নিতু সরকার, কল্যাণ মজুমদার, অ্যালভিটো এদের অপসারণের দাবিতে বিক্ষোভ শুরু হয়।





 

সমর্থকদের দাবি ক্লাবের কর্মকর্তারা কাঠ মানি খেয়ে নিম্নমানের খেলোয়াড় এনেছে। এরফলে নষ্ট হচ্ছে ক্লাবের ভাবমূর্তি। এরপর পুলিশ লাঠিচার্জ শুরু করে। অনেক সমর্থক বেশ গুরুতর আহত হন। এমনকি ক্লাবের অনেকদিনের সঙ্গী লজেন্স মাসিও পুলিশের হাতে আক্রান্ত হন। এরপর কান্নায় ভেঙে পড়েন মাসি। বাদ যায়নি সাংবাদিকরাও। অনেকে দৌড়ায় প্রাণ বাঁচানোর তাগিদে। অনেক সাংবাদিক পুলিশের লাঠিচার্জ এর সম্মুখীন হন। এলাকায় তীব্র উত্তেজনার সৃষ্টি হয়। মাঠ ঘিরেজারি রয়েছে কড়া নিরাপত্তা। এলাকা বেশ থমথমে রয়েছে।