অবৈধ সম্পর্কের অভিযোগ তুলে আবারো গণপিটুনীর ঘটনা মালদাতে




মালদা, ১৩ সেপ্টেম্বর:ফের মালদা থানা এলাকাতে গণপিটুনীর ঘটনা ঘটল। আইন হাতে তুলে নিলেন বাসিন্দারা।আর এই ঘটনা আরো একবার প্রশ্ন তুললো আইনের শাসন নিয়ে। এক মহিলার সঙ্গে অবৈধ সম্পর্কের অভিযোগ তুলে এক সবজি বিক্রেতাকে গণধোলাই। আশঙ্কাজনক অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে মালদা মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে ভর্তি করে মালদা থানার পুলিশ। বর্তমানে সেখানেই তার চিকিৎসা চলছে। ঘটনাটি ঘটেছে, বৃহস্পতিবার রাতে মালদা থানার কাদিরপুর গ্রামে। পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে আহত সবজি বিক্রেতার নাম রাজু নবাদ(৩২)। বাড়ি ইংরেজবাজার থানার অমৃতি অঞ্চলের বানিয়া গ্রামে।উল্লেখ্য মালদা থানার কাদিরপুরের পিংকীর সঙ্গে ইংরেজ বাজারের বানিয়া গ্রামের রাজুর বেশ কিছু দিন ধরে একটা সম্পর্ক গড়ে ওঠে।




দুজনেই মালদহ শহরে রথবাড়ি বাজারে সবজি বিক্রি করে। দুদিন আগে পিংকীর সঙ্গে রাজুর গোলমাল হয়। গতকাল রাতে পিংকী ফোন করে রাজু কে কাদিরপুরে ডাকে সেখানে তাকে ঘর বন্ধ করে গ্রামবাসীরা গন পিটুনি দেয় মদের বোতল মাথায় ভেঙ্গে দেয়। অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ার পর রাজুকে রাতেই মালদা থানার মৌলপুর গ্রামীন হাসপাতালের গেটের সামনে ফেলে পালিয়ে যায়। পরে স্থানীয়রা দেখতে পেলে পুলিশে খবর দেয় পুলিশ তাকে উদ্ধার করে মালদা মেডিকেল কলেজে ভর্তি করে। পুলিশের পক্ষথেকে রাজুর বাড়িতে খবর দেওয়া হয়। পিংকীর খোঁজে তল্লাশি চালাচ্ছে পুলিশ।




Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!