পনের টাকা না মেলায়, মধ্যযুগের বর্বরতার শিকার হলো এক গৃহবধূ




কোচবিহার,০১ নভেম্বর :-মধ্যযুগের বর্বরতার শিকার হলো এক গৃহবধূ ,বিয়ের সময় পনের টাকা সব না মেলায় শশুরবাড়িতে চলে পাশবিক অত্যাচার৷ মারধোর করার পরে হাতে গরমতেল ঢেলে দেওয়া হয়৷ আভিযোগের তীর শাশুড়ি ,ননদ এবং কাকা শশুরের বিরূদ্ধে৷ ঘটনা টি ঘটেছে কোচবিহারের মাথাভাঙ্গা ব্লকের হাজরাহাট গ্রাম পঞ্চায়েত ভাঙ্গামোর গ্রামে৷ গৃহবধূর নাম গীতা জোয়ারদার ৷




কর্মসুত্রে স্বামি বাইরে থাকে ৷স্বামি বাড়িতে না থাকায় ফের অতিরিক্ত পনের দাবিতে চলে আরও বেশি অত্যাচার ৷আজ ,বাপের বাড়ি থেকে শশুরবাড়ি এসেই আজ গৃহ বধূকে মারধোর করে হাতে হাতে গরম তেল ঢেলে দেওয়া হয়৷ অভিযোগ শাশুড়ি ,দেওয়র ,ননদ ,এবং কাকা শাশুড়ি ওই গৃহ বধূকে মারধোর করে হাতে গরম তেল ঢেলে দেয় ৷

এর পর প্রতিবেশীরা ক্ষিপ্ত হয়ে যান ,পরে তারাই ,হাসপাতালে ভর্তি করায়৷ প্রতিবেশিরা জানান “”ওই পরিবার লাগাতর ওই গৃহবধূর ওপর অত্যাচার চালাত ,এই ঘটনায় তারা গৃহ বধূর সুবিচার চান ৷লিখিত অভিযোগ পেয়ে ঘটনায় তদন্ত করছে পুলিশ ৷




Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!