ব্রেকফাস্ট না করার বদভ্যাস ডেকে আনতে পারে হার্টের সমস্যা

ওয়েব ডেস্ক: ডায়েটিশিয়ানরা বলেন ব্রেকফাস্ট দিনের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ মিল।হার্ট যদি ভাল রাখতে চান তা হলেও কিন্তু রোজ খেতেই হবে ব্রেকফাস্ট। কারণ ব্রেকফাস্ট থেকেই পাওয়া যায় সারা দিনের এনার্জি। আর হার্ট? সেটার কী করে ব্রেকফাস্ট? গবেষকরা জানাচ্ছেন হার্ট যদি ভাল রাখতে চান তা হলেও কিন্তু রোজ খেতেই হবে ব্রেকফাস্ট। কারণ, ব্রেকফাস্ট না খেলে ধমনী শক্ত হয়ে আর্থারোস্কেলোরোসিসের ঝুঁকি বাড়তে থাকে। নিউ ইয়র্ক সিটির মাউন্ট সিনাই হার্টের বিজ্ঞানীরা জানাচ্ছেন, যারা নিয়মিত ব্রেকফাস্ট করেন না তাদের মধ্যে কোমরে মেদ জমা, বিএমআই রেট, রক্তচাপ, রক্তে শর্করার মাত্রা বেড়ে যাওয়ার মতো সমস্যা দেখা দেয়।



আবার টাফট বিশ্ববিদ্যালয়ের সহকারী অধ্যাপক হোসে পেনাভলো জানাচ্ছেন, ব্রেকফাস্ট বাদ দেওয়ার সঙ্গে সরাসরি আর্টারি ব্লক হওয়ার সম্পর্ক না থাকলেও, সাধারণত যারা ব্রেকফাস্ট করেন না তাদের মধ্যে সারা দিনই অস্বাস্থ্যকর জীবনযাপন করার প্রবণতা দেখা যায়। অ্যালকোহল ও ধূমপানের নেশাও এদের মধ্যে বেশি লক্ষ করা যায়। যার ফলে ক্রমাগত খারাপ হতে থাকে হার্টের স্বাস্থ্য।

বিজ্ঞাপন

এই গবেষণার জন্য ৪,০৫২ জন অংশগ্রহণকারীকে বেছে নেন গবেষকরা। যাদের হার্টের সমস্যার রেকর্ড রয়েছে। দেখা গিয়েছে, এদেরে মধ্যে ৬৯ শতাংশই নিয়মিত ব্রেকফাস্ট করেন না। ২৮ শতাংশ ব্রেকফাস্টে তেল, মশলাযুক্ত খাবার খেয়ে থাকেন এব‌ং এদের মধ্যে অধিকাংশেরই চেহারা মেদবহুল।



আবার কানাডার নিউট্রিশনিস্টরা জানাচ্ছেন, যেহেতু ব্রেকফাস্ট আমাদের শরীরের মেটাবলিক কার্যকারিতা নিয়ন্ত্রণ করে তাই ব্রেকফাস্ট না করার অভ্যাস শরীরে মেদ জমার বা ওবেসিটির প্রধান কারণ হয়ে দাঁড়ায়। ব্রেকফাস্ট বাদ দিলে শরীরে ক্যালসিয়ামের ঘাটতি দেখা যায়। ক্যালসিয়াম আমাদের সুস্থতার জন্য অত্যন্ত জরুরি। ব্রেকফাস্ট আমাদের শরীরের ফ্যাট বার্নিং এনার্জি বাড়ায়, রক্তে শর্করার মাত্রাও নিয়ন্ত্রণে রাখে। ফলে হার্ট সুস্থ থাকে।




Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *