সুমন কুমার সাহু এর কবিতা “মেঘ-কবিতা একলা আমি”

ajj saradine_W

মেঘ-কবিতা

একলা আমি

সুমন কুমার সাহু

(১)

মন খারাপের সকাল যেন মেঘলা আকাশ ছেয়ে –

মেঘ হয়ে আসুক তবে আলসে বিছানা নিয়ে !

ওহো একটু আদুরে মেয়ে,

অতল নিথর জলের তলে কিংবা শূন্য আকাশ পানে।

গভীর যত অনুভূতি হাল্কা ততই মনের পাখি,

উড়তে দিয়োগো আপন মনে –

হোক খানিক সমর্পণে;

আমি মানাই আমার মত; মানাই তারে যে না আমার হত !

বানাই শব্দ অলঙ্কারে ,

আলোয় ভাসে শব্দ খানি, আমি হারাই অন্ধকারে ।

(২)

মেঘের বুকে শূন্য মেঘের কোলে জল

মেঘের চোখে কাজল কালো , তাই মেঘ বালিকা বল ।

মেঘ মেঘ করে আকাশ ঘন, মেঘ নেই করে হাহাকার;

মেঘের তরেই ঋতুর ছবি পেয়ে যাবে অস্কার !

(৩)

তুমি মেঘ হয়ে জমো বুকে আর ঝিরি ঝিরি অসময়ে চোখে;

তুমি মেঘ হয়ে উড়ে যাও প্রানে আর মিছি মিছি ভিজে ওঠো ঠোঁটে ।

যদি যেতে চাও আরো-সে গভীর আকাশ ডুবে

আরো সেই অস্থির মন কামনা যেমন, একটু শব্দের ছাঁচে

এসো হে উন্মুক্ত মন, এসো হে শরীরে সমর্পণ ।

(৪)

আমার সাথে মেঘ মেঘ হয়ে শব্দ দিয়োগো মেখে

আমি যে অনুভূতি নিয়ে বৃষ্টির মত ঝরে পরব যে দেহে

কল্পনা মেখে শব্দ চাদরে

… আদরে …আদরে !

তুমি হেসেছ চোখের কোনে , হয়ত আমায় ভেবে

তবুও দাওনি ইচ্ছে গুলো, সে তো কাঁদায় কবিতা মেখে।

আমি দূর থেকে খুঁজি, যে গভীরে রয়েছে তোমার মন

আমি স্পর্শে তোমায় মাখি, যেখানে স্বপ্ন আমন্ত্রন

হা হা হা আমি ঘুমোই তোমার কোলে হয়তো আদর মেখে

তুমি উন্মাদ ভাবো, কি ভাবে এততো দূরে থেকে !

(৫)

নাহয় তবে ডুবে যাও তুমি আমার মিছি মিছি প্রেমে

কিছুটা গভীর নিঃশ্বাসে কিছুটা শিহরনে ঘেমে

আমি থেকেও থাকবোনা কোথাও

শুধু কবিতা হয়ে থেকে যাব মনে।

মনে মনে, বহু দূরে থেকে,

একটু নাহয় ভুল করে ভালবেসে ফেলে

কবিতার সাথে, একাকী গভীর নিঃশ্বাসে, মনের অনেক বিশ্বাসে ।।


You May Also Like

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *